০৭:২০ অপরাহ্ন, মঙ্গলবার, ২১ মে ২০২৪

আদালত চত্বর থেকে ছিনতাই জঙ্গির স্ত্রীসহ গ্রেপ্তার ২

নিজস্ব সংবাদ দাতা
  • আপডেট সময় ০৯:৩৬:২৯ পূর্বাহ্ন, শনিবার, ৮ এপ্রিল ২০২৩
  • / ৬৮ বার পড়া হয়েছে

ঢাকার আদালতে চত্বর থেকে দুই জঙ্গি ছিনতাইয়ের ঘটনায় শিখা নামে এক নারীকে ও তার এক আশ্রয়দাতাকে গ্রেপ্তার করেছে কাউন্টার টেরোরিজম অ্যান্ড ট্রান্সন্যাশনাল ক্রাইম (সিটিটিসি) ইউনিট।

শুক্রবার (৭ এপ্রিল) রাতে সংবাদমাধ্যমকে এ তথ্য নিশ্চিত করেন সিটিটিসি’র অতিরিক্ত কমিশনার মো. আসাদুজ্জামান। তিনি বলেন, আদালতে চত্বর থেকে দুই জঙ্গি ছিনতাইয়ের মূল সমন্বয়ক জেল পলাতক জঙ্গি সোহেলের স্ত্রী শিখা ও তার আশ্রয়দাতাকে নারায়ণগঞ্জ থেকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে। তাদের সঙ্গে নিয়ে পলাতক জঙ্গিদের গ্রেপ্তার অভিযান চালানো হচ্ছে। পরবর্তী সময়ে এ বিষয়ে বিস্তারিত জানানো সম্ভব হবে।

এদিকে ঢাকা মহানগর পুলিশের এক বার্তায় দাবি করা হয়েছে, গত ২০ নভেম্বর আদালত চত্বর থেকে মৃত্যুদণ্ডপ্রাপ্ত দুই জঙ্গি ছিনতাইয়ের মূল সমন্বয়ক শিখা। তবে বার্তায় কখন ও কোথা থেকে তাদের গ্রেপ্তার করা হয়েছে তা জানানো হয়নি। এ ছাড়া ওই নারীর ‘আশ্রয়দাতার’ নামও বলা হয়নি। প্রসঙ্গত, গত ২০ নভেম্বর ঢাকার চিফ জুডিশিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট আদালতের ফটকে পুলিশকে মারধর ও চোখে পিপার স্প্রে ছিটিয়ে নিষিদ্ধ সংগঠন আনসার আল ইসলামের দুই সদস্যকে ছিনিয়ে নিয়ে যায় জঙ্গিরা।

এসময় আরাফাত ও সবুর নামে আরও দুই আসামিকে ছিনিয়ে নিতে চেষ্টা করলেও পরে তাদের ঘটনাস্থল থেকে গ্রেপ্তার করে পুলিশ। এর তিন দিন পর ‘আনসার আল ইসলামের সদস্য’ মেহেদী হাসান অমি ওরফে রাফিকে গ্রেপ্তার করে পুলিশ দাবি করেছিল তিনি ওই ঘটনার প্রধান সমন্বয়ক ছিলেন।

ট্যাগস

নিউজটি শেয়ার করুন

আদালত চত্বর থেকে ছিনতাই জঙ্গির স্ত্রীসহ গ্রেপ্তার ২

আপডেট সময় ০৯:৩৬:২৯ পূর্বাহ্ন, শনিবার, ৮ এপ্রিল ২০২৩

ঢাকার আদালতে চত্বর থেকে দুই জঙ্গি ছিনতাইয়ের ঘটনায় শিখা নামে এক নারীকে ও তার এক আশ্রয়দাতাকে গ্রেপ্তার করেছে কাউন্টার টেরোরিজম অ্যান্ড ট্রান্সন্যাশনাল ক্রাইম (সিটিটিসি) ইউনিট।

শুক্রবার (৭ এপ্রিল) রাতে সংবাদমাধ্যমকে এ তথ্য নিশ্চিত করেন সিটিটিসি’র অতিরিক্ত কমিশনার মো. আসাদুজ্জামান। তিনি বলেন, আদালতে চত্বর থেকে দুই জঙ্গি ছিনতাইয়ের মূল সমন্বয়ক জেল পলাতক জঙ্গি সোহেলের স্ত্রী শিখা ও তার আশ্রয়দাতাকে নারায়ণগঞ্জ থেকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে। তাদের সঙ্গে নিয়ে পলাতক জঙ্গিদের গ্রেপ্তার অভিযান চালানো হচ্ছে। পরবর্তী সময়ে এ বিষয়ে বিস্তারিত জানানো সম্ভব হবে।

এদিকে ঢাকা মহানগর পুলিশের এক বার্তায় দাবি করা হয়েছে, গত ২০ নভেম্বর আদালত চত্বর থেকে মৃত্যুদণ্ডপ্রাপ্ত দুই জঙ্গি ছিনতাইয়ের মূল সমন্বয়ক শিখা। তবে বার্তায় কখন ও কোথা থেকে তাদের গ্রেপ্তার করা হয়েছে তা জানানো হয়নি। এ ছাড়া ওই নারীর ‘আশ্রয়দাতার’ নামও বলা হয়নি। প্রসঙ্গত, গত ২০ নভেম্বর ঢাকার চিফ জুডিশিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট আদালতের ফটকে পুলিশকে মারধর ও চোখে পিপার স্প্রে ছিটিয়ে নিষিদ্ধ সংগঠন আনসার আল ইসলামের দুই সদস্যকে ছিনিয়ে নিয়ে যায় জঙ্গিরা।

এসময় আরাফাত ও সবুর নামে আরও দুই আসামিকে ছিনিয়ে নিতে চেষ্টা করলেও পরে তাদের ঘটনাস্থল থেকে গ্রেপ্তার করে পুলিশ। এর তিন দিন পর ‘আনসার আল ইসলামের সদস্য’ মেহেদী হাসান অমি ওরফে রাফিকে গ্রেপ্তার করে পুলিশ দাবি করেছিল তিনি ওই ঘটনার প্রধান সমন্বয়ক ছিলেন।