০২:২৭ অপরাহ্ন, রবিবার, ১৪ এপ্রিল ২০২৪

আরও ২ ম্যাচ খেলে অবসর নেবেন সানিয়া মির্জা

নিজস্ব সংবাদ দাতা
  • আপডেট সময় ০৩:৪৯:২০ অপরাহ্ন, মঙ্গলবার, ২৮ ফেব্রুয়ারী ২০২৩
  • / ৭৯ বার পড়া হয়েছে

ভারতীয় টেনিসে জনপ্রিয় এক নাম সানিয়া মির্জা। সম্প্রতি টেনিস থেকে অবসরের ঘোষণা দিয়েছিলেন তিনি। কিন্তু এখনও তা হয়নি। অবসরের আগে তার ইচ্ছা তিনি আরও দুটি ম্যাচ খেলবেন। নিজ শহর হায়দ্রাবাদে ম্যাচ দুটি খেলার ইচ্ছে রয়েছে তার। আগামী ৫ মার্চ নিজের শহরে খেলবেন সানিয়া।

সম্প্রতি সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে এ বিষয়ে তিনি নিজেই জানিয়েছেন। তার দাবি, ১৮ থেকে ২০ বছর আগে যেখানে আমার টেনিসজীবন শুরু হয়েছিল, সেই হায়দ্রাবাদেই ৫ মার্চ আমি শেষ ম্যাচ খেলব। সানিয়া জানান, আমার পরিবার, বন্ধু, যাদের সঙ্গে এতদিন খেলেছি, তারা সবাই আসবে। তোমাদের সামনে শেষ বারের মতো কোর্টে নামার জন্য আর অপেক্ষা করতে পারছি না। সর্বোপরি আমার ভক্তরা থাকবেন, যারা এই যাত্রাপথে আমার সঙ্গে ছিলেন।

হায়দ্রাবাদে দুটি প্রদর্শনী ম্যাচের মধ্যে প্রথম ম্যাচটি হবে ‘রাউন্ডার’ ম্যাচ। এর মধ্যে এক দলের নেতৃত্বে থাকবেন রোহন বোপান্না, অন্যটির সানিয়া মির্জা। আর দ্বিতীয় ম্যাচটি হবে ‘মিক্সড ডাবলস’। এ ম্যাচে জুটি বেঁধে খেলবেন সানিয়া ও বোপান্না। আর তাদের প্রতিপক্ষ ইভান ডডিগ ও বেথানি মাতেক স্যান্ডস। গত সপ্তাহেই পেশাদার টেনিসকে বিদায় জানান সানিয়া মির্জা। যদিও নিজের অবসরের সিদ্ধান্তের কথা আগেই জানিয়েছিলেন তিনি।

তাই দুবাই ডিউটি ফ্রি টেনিস প্রতিযোগিতাকেই ক্যারিয়ারের শেষ টুর্নামেন্ট হিসেবে বেছে নিয়েছিলেন ভারতের এই টেনিস সেনসেশন। কিন্তু ৩৬ বছর বয়সী এক সময়ের নাম্বার ওয়ান এই টেনিস তারকার শেষ যাত্রাটা রঙিন হয়নি। এই প্রতিযোগিতার প্রথম রাউন্ডেই হেরে যান ছয়টি গ্র্যান্ড স্ল্যাম জয়ী এই তারকা। ২০০৩ সালে পেশাদার টেনিসে পা রেখেছিলেন সানিয়া। এরপর শুধু ভারতের নয়, হয়ে উঠেছিলেন এশিয়ান মহিলা টেনিসের মুখ। একসময় সেরেনা উইলিয়ামস, মারিয়া শারাপোভাদের মতো বিশ্বতারকাদের সঙ্গেই উচ্চারিত হতো সানিয়ার নাম।

তবে বারবার চোটের আঘাতে পড়ে নিজের ইচ্ছেতেই অবসরের সময় বেছে নিয়েছেন সানিয়া। বিশ্ব টেনিসের আঙিনায় ভারতের একমাত্র প্রতিনিধি ছিলেন সানিয়া মির্জা। কোনো টুর্নামেন্টের একক গ্র্যান্ড স্ল্যাম জিততে পারেননি তিনি। তবে সর্বোচ্চ চতুর্থ রাউন্ডে উঠতে পেরেছিলেন ইউএস ওপেনে। তবে ব্যক্তিগত ক্যারিয়ার সেরা র‍্যাঙ্কিংয়ে ২৭ পর্যন্ত উঠেছিলেন তিনি।

ডব্লিউটিএ ডাবলস র‍্যাঙ্কিংয়ে টানা ৯১ সপ্তাহ শীর্ষে ছিলেন সানিয়া। ডাবলস ও মিক্সড ডাবলসে তার গ্র্যান্ড স্লামের সংখ্যা ছয়টি। গত জানুয়ারিতেই অস্ট্রেলিয়ান ওপেনে খেলোয়াড় জীবনের শেষ গ্র্যান্ডস্ল্যাম খেলতে নেমেছিলেন সানিয়া। নারী ডাবলসে দ্বিতীয় রাউন্ডেই আটকে গেলেও রোহন বোপান্নাকে নিয়ে মিক্সড ডাবলসের ফাইনালে উঠেছিলেন। কিন্তু শেষবারের মতো খেতাব জয় অধরা থেকে গেছে সাবেক এই চ্যাম্পিয়নের।

ট্যাগস

নিউজটি শেয়ার করুন

আরও ২ ম্যাচ খেলে অবসর নেবেন সানিয়া মির্জা

আপডেট সময় ০৩:৪৯:২০ অপরাহ্ন, মঙ্গলবার, ২৮ ফেব্রুয়ারী ২০২৩

ভারতীয় টেনিসে জনপ্রিয় এক নাম সানিয়া মির্জা। সম্প্রতি টেনিস থেকে অবসরের ঘোষণা দিয়েছিলেন তিনি। কিন্তু এখনও তা হয়নি। অবসরের আগে তার ইচ্ছা তিনি আরও দুটি ম্যাচ খেলবেন। নিজ শহর হায়দ্রাবাদে ম্যাচ দুটি খেলার ইচ্ছে রয়েছে তার। আগামী ৫ মার্চ নিজের শহরে খেলবেন সানিয়া।

সম্প্রতি সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে এ বিষয়ে তিনি নিজেই জানিয়েছেন। তার দাবি, ১৮ থেকে ২০ বছর আগে যেখানে আমার টেনিসজীবন শুরু হয়েছিল, সেই হায়দ্রাবাদেই ৫ মার্চ আমি শেষ ম্যাচ খেলব। সানিয়া জানান, আমার পরিবার, বন্ধু, যাদের সঙ্গে এতদিন খেলেছি, তারা সবাই আসবে। তোমাদের সামনে শেষ বারের মতো কোর্টে নামার জন্য আর অপেক্ষা করতে পারছি না। সর্বোপরি আমার ভক্তরা থাকবেন, যারা এই যাত্রাপথে আমার সঙ্গে ছিলেন।

হায়দ্রাবাদে দুটি প্রদর্শনী ম্যাচের মধ্যে প্রথম ম্যাচটি হবে ‘রাউন্ডার’ ম্যাচ। এর মধ্যে এক দলের নেতৃত্বে থাকবেন রোহন বোপান্না, অন্যটির সানিয়া মির্জা। আর দ্বিতীয় ম্যাচটি হবে ‘মিক্সড ডাবলস’। এ ম্যাচে জুটি বেঁধে খেলবেন সানিয়া ও বোপান্না। আর তাদের প্রতিপক্ষ ইভান ডডিগ ও বেথানি মাতেক স্যান্ডস। গত সপ্তাহেই পেশাদার টেনিসকে বিদায় জানান সানিয়া মির্জা। যদিও নিজের অবসরের সিদ্ধান্তের কথা আগেই জানিয়েছিলেন তিনি।

তাই দুবাই ডিউটি ফ্রি টেনিস প্রতিযোগিতাকেই ক্যারিয়ারের শেষ টুর্নামেন্ট হিসেবে বেছে নিয়েছিলেন ভারতের এই টেনিস সেনসেশন। কিন্তু ৩৬ বছর বয়সী এক সময়ের নাম্বার ওয়ান এই টেনিস তারকার শেষ যাত্রাটা রঙিন হয়নি। এই প্রতিযোগিতার প্রথম রাউন্ডেই হেরে যান ছয়টি গ্র্যান্ড স্ল্যাম জয়ী এই তারকা। ২০০৩ সালে পেশাদার টেনিসে পা রেখেছিলেন সানিয়া। এরপর শুধু ভারতের নয়, হয়ে উঠেছিলেন এশিয়ান মহিলা টেনিসের মুখ। একসময় সেরেনা উইলিয়ামস, মারিয়া শারাপোভাদের মতো বিশ্বতারকাদের সঙ্গেই উচ্চারিত হতো সানিয়ার নাম।

তবে বারবার চোটের আঘাতে পড়ে নিজের ইচ্ছেতেই অবসরের সময় বেছে নিয়েছেন সানিয়া। বিশ্ব টেনিসের আঙিনায় ভারতের একমাত্র প্রতিনিধি ছিলেন সানিয়া মির্জা। কোনো টুর্নামেন্টের একক গ্র্যান্ড স্ল্যাম জিততে পারেননি তিনি। তবে সর্বোচ্চ চতুর্থ রাউন্ডে উঠতে পেরেছিলেন ইউএস ওপেনে। তবে ব্যক্তিগত ক্যারিয়ার সেরা র‍্যাঙ্কিংয়ে ২৭ পর্যন্ত উঠেছিলেন তিনি।

ডব্লিউটিএ ডাবলস র‍্যাঙ্কিংয়ে টানা ৯১ সপ্তাহ শীর্ষে ছিলেন সানিয়া। ডাবলস ও মিক্সড ডাবলসে তার গ্র্যান্ড স্লামের সংখ্যা ছয়টি। গত জানুয়ারিতেই অস্ট্রেলিয়ান ওপেনে খেলোয়াড় জীবনের শেষ গ্র্যান্ডস্ল্যাম খেলতে নেমেছিলেন সানিয়া। নারী ডাবলসে দ্বিতীয় রাউন্ডেই আটকে গেলেও রোহন বোপান্নাকে নিয়ে মিক্সড ডাবলসের ফাইনালে উঠেছিলেন। কিন্তু শেষবারের মতো খেতাব জয় অধরা থেকে গেছে সাবেক এই চ্যাম্পিয়নের।