০৯:৫৯ পূর্বাহ্ন, সোমবার, ১৫ এপ্রিল ২০২৪

আ.লীগের দুটো ব্যাপার, একটা সন্ত্রাস অন্যটা দুর্নীতি : মির্জা ফখরুল

নিজস্ব সংবাদ দাতা
  • আপডেট সময় ০৯:৫৪:০৯ অপরাহ্ন, বুধবার, ১৯ এপ্রিল ২০২৩
  • / ৫৩ বার পড়া হয়েছে

মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর বলেন, অগ্নিসন্ত্রাসের হোতা আওয়ামী লীগের জিনের মধ্যে এই অগ্নিসন্ত্রাস। তাদের দুটো ব্যাপার- একটা সন্ত্রাস অন্যটা দুর্নীতি। অবাধ, নিরপেক্ষ তদন্তের মাধ্যমে প্রকৃত কারণ উদঘাটন না করে বিরোধী দলের প্রতি আঙুল তোলা ‘উদোর পিন্ডি বুধোর ঘাড়ে’ চাপানোর কৌশল।

ঢাকা মহানগরে, বঙ্গবাজারসহ বিভিন্ন বাজারে অগ্নিকাণ্ডের ঘটনায় গভীর উদ্বেগ প্রকাশ করে এসব কথা বলেন তিনি। বুধবার (১৯ এপ্রিল) বিএনপি চেয়ারপারসনের গুলশানের রাজনৈতিক কার্যালয়ে আয়োজিত সংবাদ সম্মেলনে এসব কথা বলেন বিএনপি মহাসচিব। গত সোমবার বিএনপির স্থায়ী কমিটির ভার্চুয়াল বৈঠকের সিদ্ধান্ত জানাতে এই সংবাদ সম্মেলন হয়।

মির্জা ফখরুল বলেন, অগ্নিকাণ্ডগুলোর প্রতিটাই এই অবৈধ সরকারের ব্যর্থতার কারণে সংঘটিত হচ্ছে। দায়িত্বপ্রাপ্ত দপ্তর ও সংগঠনগুলোর তদারকির অভাব, সীমাহীন উদাসীনতা এবং দুর্নীতির কারণেই পরিস্থিতি জটিল আকার ধারণ করেছে। অপরদিকে গণতন্ত্র পুনরুদ্ধারের আন্দোলন থেকে জনগণের দৃষ্টি ভিন্ন খাতে প্রবাহিত করার অপকৌশল মাত্র। এ সময় অবিলম্বে নিরপেক্ষ তদন্তের আহ্বান জানান তিনি।

পাশাপাশি সরকারপ্রধান শেখ হাসিনাসহ সরকারের মন্ত্রীদের বিএনপিকে দোষারোপ করায় তীব্র নিন্দা এবং প্রতিবাদও জানান ফখরুল। তিনি আরও বলেন, স্থায়ী কমিটির বৈঠকে বিএনপির ভারপ্রাপ্ত চেয়ারম্যান তারেক রহমান ও ডা. জোবাইদা রহমানের বিরুদ্ধে ষড়যন্ত্রমূলক মিথ্যা মামলায় চার্জ গঠন ও বিচার শুরু করায় আদালতের নির্দেশে ক্ষোভ ও নিন্দা প্রকাশ করা হয়।

বলা হয় যে, বিরোধী দলকে নির্মূল করার নীল নকশার অংশ হিসেবে ১-১১ অবৈধ সরকারের সঙ্গে যোগসাজশে গণতন্ত্র ও স্বাধীনতার শত্রুরা পরিকল্পিতভাবে বাংলাদেশের সবচেয়ে জনপ্রিয় রাজনৈতিক পরিবার শহীদ জিয়াউর রহমান, খালেদা জিয়া, তারেক রহমান, জোবায়দা রহমান এবং এই জিয়া পরিবারের সদস্যদের বিরুদ্ধে মিথ্যা মামলা, প্রহসনমূলক বিচার ও ফরমায়েসী রায় দিয়ে খালেদা জিয়া, তারেক রহমানকে রাজনীতি থেকে দূরে সরিয়ে দেওয়ার হীন চক্রান্ত করে আসছে। সংবাদ সম্মেলনে বিএনপির মিডিয়া সেলের আহ্বায়ক জহির উদ্দিন স্বপন, সদস্য সচিব শহীদ উদ্দীন চৌধুরী এ্যানি উপস্থিত ছিলেন।

ট্যাগস

নিউজটি শেয়ার করুন

আ.লীগের দুটো ব্যাপার, একটা সন্ত্রাস অন্যটা দুর্নীতি : মির্জা ফখরুল

আপডেট সময় ০৯:৫৪:০৯ অপরাহ্ন, বুধবার, ১৯ এপ্রিল ২০২৩

মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর বলেন, অগ্নিসন্ত্রাসের হোতা আওয়ামী লীগের জিনের মধ্যে এই অগ্নিসন্ত্রাস। তাদের দুটো ব্যাপার- একটা সন্ত্রাস অন্যটা দুর্নীতি। অবাধ, নিরপেক্ষ তদন্তের মাধ্যমে প্রকৃত কারণ উদঘাটন না করে বিরোধী দলের প্রতি আঙুল তোলা ‘উদোর পিন্ডি বুধোর ঘাড়ে’ চাপানোর কৌশল।

ঢাকা মহানগরে, বঙ্গবাজারসহ বিভিন্ন বাজারে অগ্নিকাণ্ডের ঘটনায় গভীর উদ্বেগ প্রকাশ করে এসব কথা বলেন তিনি। বুধবার (১৯ এপ্রিল) বিএনপি চেয়ারপারসনের গুলশানের রাজনৈতিক কার্যালয়ে আয়োজিত সংবাদ সম্মেলনে এসব কথা বলেন বিএনপি মহাসচিব। গত সোমবার বিএনপির স্থায়ী কমিটির ভার্চুয়াল বৈঠকের সিদ্ধান্ত জানাতে এই সংবাদ সম্মেলন হয়।

মির্জা ফখরুল বলেন, অগ্নিকাণ্ডগুলোর প্রতিটাই এই অবৈধ সরকারের ব্যর্থতার কারণে সংঘটিত হচ্ছে। দায়িত্বপ্রাপ্ত দপ্তর ও সংগঠনগুলোর তদারকির অভাব, সীমাহীন উদাসীনতা এবং দুর্নীতির কারণেই পরিস্থিতি জটিল আকার ধারণ করেছে। অপরদিকে গণতন্ত্র পুনরুদ্ধারের আন্দোলন থেকে জনগণের দৃষ্টি ভিন্ন খাতে প্রবাহিত করার অপকৌশল মাত্র। এ সময় অবিলম্বে নিরপেক্ষ তদন্তের আহ্বান জানান তিনি।

পাশাপাশি সরকারপ্রধান শেখ হাসিনাসহ সরকারের মন্ত্রীদের বিএনপিকে দোষারোপ করায় তীব্র নিন্দা এবং প্রতিবাদও জানান ফখরুল। তিনি আরও বলেন, স্থায়ী কমিটির বৈঠকে বিএনপির ভারপ্রাপ্ত চেয়ারম্যান তারেক রহমান ও ডা. জোবাইদা রহমানের বিরুদ্ধে ষড়যন্ত্রমূলক মিথ্যা মামলায় চার্জ গঠন ও বিচার শুরু করায় আদালতের নির্দেশে ক্ষোভ ও নিন্দা প্রকাশ করা হয়।

বলা হয় যে, বিরোধী দলকে নির্মূল করার নীল নকশার অংশ হিসেবে ১-১১ অবৈধ সরকারের সঙ্গে যোগসাজশে গণতন্ত্র ও স্বাধীনতার শত্রুরা পরিকল্পিতভাবে বাংলাদেশের সবচেয়ে জনপ্রিয় রাজনৈতিক পরিবার শহীদ জিয়াউর রহমান, খালেদা জিয়া, তারেক রহমান, জোবায়দা রহমান এবং এই জিয়া পরিবারের সদস্যদের বিরুদ্ধে মিথ্যা মামলা, প্রহসনমূলক বিচার ও ফরমায়েসী রায় দিয়ে খালেদা জিয়া, তারেক রহমানকে রাজনীতি থেকে দূরে সরিয়ে দেওয়ার হীন চক্রান্ত করে আসছে। সংবাদ সম্মেলনে বিএনপির মিডিয়া সেলের আহ্বায়ক জহির উদ্দিন স্বপন, সদস্য সচিব শহীদ উদ্দীন চৌধুরী এ্যানি উপস্থিত ছিলেন।