০৪:৫৮ অপরাহ্ন, বৃহস্পতিবার, ২২ ফেব্রুয়ারী ২০২৪

ইসির সঙ্গে আলোচনা অর্থহীন : ফখরুল

নিজস্ব সংবাদ দাতা
  • আপডেট সময় ০৭:৩৫:২৬ অপরাহ্ন, বুধবার, ২৯ মার্চ ২০২৩
  • / ৫৩ বার পড়া হয়েছে

নির্বাচনকালীন সরকারের বিষয়টি নিষ্পত্তি না হওয়া পর্যন্ত ইসির সঙ্গে আলোচনা অর্থহীন হবে বলে মন্তব্য করেছেন বিএনপি মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর।

বুধবার (২৯ মার্চ) গুলশানে বিএনপি চেয়ারপারসনের রাজনৈতিক কার্যালয়ে আয়োজিত এক সংবাদ সম্মেলনে তিনি এ কথা বলেন। মির্জা ফখরুল বলেন, নির্দলীয়, নিরপেক্ষ সরকার ছাড়া কোনো আলাপ নেই। আলোচনায় তত্ত্বাবধায়ক সরকারের বিষয় এলে দল হিসেবে আমরা বিবেচনা করব। তিনি বলেন, ২০১৪ এবং ২০১৮ সালের নির্বাচনে প্রমাণিত হয়েছে নির্বাচন কমিশন স্বাধীন নয়।

ইচ্ছে থাকলেও নির্বাচনকে অবাধ, সুষ্ঠু ও নিরপেক্ষভাবে আয়োজনে ইসির ক্ষমতা নেই। বিএনপির এই নেতা বলেন, চলমান সংকট রাজনৈতিক, এই সংকট নিরসনে ইসি সিদ্ধান্ত নিতে পারবে না। সংকট সমাধানের উদ্যোগ সরকারকেই নিতে হবে, তাদেরকে এগিয়ে আসতে হবে। ফখরুল বলেন, সিইসি কাজী হাবিবুল আউয়াল অত্যন্ত ভদ্রলোক, তার আবেদনও ভেরি গুড। কিন্তু বাস্তবতা আমরা জানি, তার কোনো ক্ষমতা নেই। অহেতুক আলাপ করে কী হবে?

নিত্যপণ্যের দাম বৃদ্ধির বিষয়ে তিনি বলেন, রমজান মাসেও দ্রব্যমূল্যের লাগামহীন ঊর্ধ্বগতি জনজীবন সীমাহীন দুর্ভোগের মধ্যে পড়েছে। সরকারি দলের ব্যবসায়ীদের সিন্ডিকেট ও এক শ্রেণির কর্মকর্তাদের দুর্নীতির কারণেই আজকে এই অবস্থা। সরকার বাজার নিয়ন্ত্রণে সম্পূর্ণ ব্যর্থ হয়েছে। এ সময় দৈনিক প্রথম আলোর সাভার প্রতিনিধি শামসুজ্জামানের নিঃশর্ত মুক্তির দাবি জানান বিএনপির মহাসচিব।

ট্যাগস

নিউজটি শেয়ার করুন

ইসির সঙ্গে আলোচনা অর্থহীন : ফখরুল

আপডেট সময় ০৭:৩৫:২৬ অপরাহ্ন, বুধবার, ২৯ মার্চ ২০২৩

নির্বাচনকালীন সরকারের বিষয়টি নিষ্পত্তি না হওয়া পর্যন্ত ইসির সঙ্গে আলোচনা অর্থহীন হবে বলে মন্তব্য করেছেন বিএনপি মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর।

বুধবার (২৯ মার্চ) গুলশানে বিএনপি চেয়ারপারসনের রাজনৈতিক কার্যালয়ে আয়োজিত এক সংবাদ সম্মেলনে তিনি এ কথা বলেন। মির্জা ফখরুল বলেন, নির্দলীয়, নিরপেক্ষ সরকার ছাড়া কোনো আলাপ নেই। আলোচনায় তত্ত্বাবধায়ক সরকারের বিষয় এলে দল হিসেবে আমরা বিবেচনা করব। তিনি বলেন, ২০১৪ এবং ২০১৮ সালের নির্বাচনে প্রমাণিত হয়েছে নির্বাচন কমিশন স্বাধীন নয়।

ইচ্ছে থাকলেও নির্বাচনকে অবাধ, সুষ্ঠু ও নিরপেক্ষভাবে আয়োজনে ইসির ক্ষমতা নেই। বিএনপির এই নেতা বলেন, চলমান সংকট রাজনৈতিক, এই সংকট নিরসনে ইসি সিদ্ধান্ত নিতে পারবে না। সংকট সমাধানের উদ্যোগ সরকারকেই নিতে হবে, তাদেরকে এগিয়ে আসতে হবে। ফখরুল বলেন, সিইসি কাজী হাবিবুল আউয়াল অত্যন্ত ভদ্রলোক, তার আবেদনও ভেরি গুড। কিন্তু বাস্তবতা আমরা জানি, তার কোনো ক্ষমতা নেই। অহেতুক আলাপ করে কী হবে?

নিত্যপণ্যের দাম বৃদ্ধির বিষয়ে তিনি বলেন, রমজান মাসেও দ্রব্যমূল্যের লাগামহীন ঊর্ধ্বগতি জনজীবন সীমাহীন দুর্ভোগের মধ্যে পড়েছে। সরকারি দলের ব্যবসায়ীদের সিন্ডিকেট ও এক শ্রেণির কর্মকর্তাদের দুর্নীতির কারণেই আজকে এই অবস্থা। সরকার বাজার নিয়ন্ত্রণে সম্পূর্ণ ব্যর্থ হয়েছে। এ সময় দৈনিক প্রথম আলোর সাভার প্রতিনিধি শামসুজ্জামানের নিঃশর্ত মুক্তির দাবি জানান বিএনপির মহাসচিব।