১১:৫৬ অপরাহ্ন, সোমবার, ২০ মে ২০২৪

ডাচ-বাংলা ব্যাংকের আরও ৫৮ লাখ টাকা উদ্ধার, গ্রেপ্তার ৩

নিজস্ব সংবাদ দাতা
  • আপডেট সময় ০৮:০০:৫৪ অপরাহ্ন, মঙ্গলবার, ১৪ মার্চ ২০২৩
  • / ৬৯ বার পড়া হয়েছে

ডাচ্‌-বাংলা ব্যাংকের টাকা ছিনতায়ের ঘটনায় মূল পরিকল্পনাকারীসহ আরও তিনজনকে গ্রেপ্তার করেছে ঢাকা মহানগর গোয়েন্দা পুলিশ (ডিবি)। এ সময় গ্রেপ্তারকৃতদের কাছ থেকে আরও ৫৮ লাখ ৭ হাজার টাকা উদ্ধার করা হয়েছে।

মঙ্গলবার (১৪ মার্চ) দুপুরে ডিএমপি মিডিয়া সেন্টারে সংবাদ সম্মেলনে এসব তথ্য জানিয়েছেন ঢাকা মহানগর গোয়েন্দা পুলিশের অতিরিক্ত কমিশনার মোহাম্মদ হারুন অর রশীদ। গ্রেপ্তারকৃতরা হলেন- মূল পরিকল্পনাকারী মো. আকাশ, হৃদয় ও নীরব। ঢাকা, নেত্রকোণা ও খুলনায় অভিযান চালিয়ে তাদের গ্রেপ্তার করা হয়।

এ নিয়ে ডাচ্‌-বাংলা ব্যাংকের টাকা ডাকাতির ঘটনায় ৭ কোটি ১ লাখ ৫৬ হাজার টাকা উদ্ধার হয়েছে বলে জানিয়েছে পুলিশ। গ্রেপ্তার ৩ জনসহ এই ঘটনায় মোট ১১ জনকে গ্রেপ্তার করেছে আইনশৃঙ্খলা বাহিনী। পুলিশ জানিয়েছে, গ্রেপ্তার তিনজনের মধ্যে কিছুক্ষণ আগে আকাশ নামে একজনকে খুলনা থেকে গ্রেপ্তার করা হয়। তিনি টাকা ডাকাতির মূল পরিকল্পনাকারীদের একজন।

তবে তার কাছ থেকে টাকা উদ্ধার করা হয়েছে কি না, তা তাৎক্ষণিকভাবে জানা যায়নি। গতকাল ঢাকার বনানীর কড়াইল বস্তি থেকে হৃদয় নামে একজনকে গ্রেপ্তার করা হয়, তার কাছ থেকে ৪৮ লাখ ৭ হাজার টাকা উদ্ধার করা হয়েছে। এ ছাড়াও নেত্রকোণা থেকে গ্রেপ্তার করা হয় নীরব নামে একজনকে গ্রেপ্তারের পর তার কাছ থেকে আরও ১০ লাখ টাকা উদ্ধার করা হয়। গ্রেপ্তার তিনজনসহ মোট ১১ জনকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে। এখন পর্যন্ত টাকা উদ্ধার করা হয়েছে ৭ কোটি ১ লাখ ৫৬ হাজার টাকা।

উল্লেখ্য, গত ৯ মার্চ সকালে রাজধানীর উত্তরা ১৬ নম্বর সেক্টরের ১১ নম্বর ব্রিজ-সংলগ্ন এলাকা থেকে ডাচ-বাংলা ব্যাংক লিমিটেডের একটি গাড়ি থেকে সোয়া ১১ কোটি টাকা ডাকাতি হয়। ওই দিন রাতে মানি প্ল্যান্ট লিংক প্রাইভেট লিমিটেডের পরিচালক আলমগীর হোসের বাদী হয়ে ডিএমপির তুরাগ থানায় একটি মামলা করেন।

ট্যাগস

নিউজটি শেয়ার করুন

ডাচ-বাংলা ব্যাংকের আরও ৫৮ লাখ টাকা উদ্ধার, গ্রেপ্তার ৩

আপডেট সময় ০৮:০০:৫৪ অপরাহ্ন, মঙ্গলবার, ১৪ মার্চ ২০২৩

ডাচ্‌-বাংলা ব্যাংকের টাকা ছিনতায়ের ঘটনায় মূল পরিকল্পনাকারীসহ আরও তিনজনকে গ্রেপ্তার করেছে ঢাকা মহানগর গোয়েন্দা পুলিশ (ডিবি)। এ সময় গ্রেপ্তারকৃতদের কাছ থেকে আরও ৫৮ লাখ ৭ হাজার টাকা উদ্ধার করা হয়েছে।

মঙ্গলবার (১৪ মার্চ) দুপুরে ডিএমপি মিডিয়া সেন্টারে সংবাদ সম্মেলনে এসব তথ্য জানিয়েছেন ঢাকা মহানগর গোয়েন্দা পুলিশের অতিরিক্ত কমিশনার মোহাম্মদ হারুন অর রশীদ। গ্রেপ্তারকৃতরা হলেন- মূল পরিকল্পনাকারী মো. আকাশ, হৃদয় ও নীরব। ঢাকা, নেত্রকোণা ও খুলনায় অভিযান চালিয়ে তাদের গ্রেপ্তার করা হয়।

এ নিয়ে ডাচ্‌-বাংলা ব্যাংকের টাকা ডাকাতির ঘটনায় ৭ কোটি ১ লাখ ৫৬ হাজার টাকা উদ্ধার হয়েছে বলে জানিয়েছে পুলিশ। গ্রেপ্তার ৩ জনসহ এই ঘটনায় মোট ১১ জনকে গ্রেপ্তার করেছে আইনশৃঙ্খলা বাহিনী। পুলিশ জানিয়েছে, গ্রেপ্তার তিনজনের মধ্যে কিছুক্ষণ আগে আকাশ নামে একজনকে খুলনা থেকে গ্রেপ্তার করা হয়। তিনি টাকা ডাকাতির মূল পরিকল্পনাকারীদের একজন।

তবে তার কাছ থেকে টাকা উদ্ধার করা হয়েছে কি না, তা তাৎক্ষণিকভাবে জানা যায়নি। গতকাল ঢাকার বনানীর কড়াইল বস্তি থেকে হৃদয় নামে একজনকে গ্রেপ্তার করা হয়, তার কাছ থেকে ৪৮ লাখ ৭ হাজার টাকা উদ্ধার করা হয়েছে। এ ছাড়াও নেত্রকোণা থেকে গ্রেপ্তার করা হয় নীরব নামে একজনকে গ্রেপ্তারের পর তার কাছ থেকে আরও ১০ লাখ টাকা উদ্ধার করা হয়। গ্রেপ্তার তিনজনসহ মোট ১১ জনকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে। এখন পর্যন্ত টাকা উদ্ধার করা হয়েছে ৭ কোটি ১ লাখ ৫৬ হাজার টাকা।

উল্লেখ্য, গত ৯ মার্চ সকালে রাজধানীর উত্তরা ১৬ নম্বর সেক্টরের ১১ নম্বর ব্রিজ-সংলগ্ন এলাকা থেকে ডাচ-বাংলা ব্যাংক লিমিটেডের একটি গাড়ি থেকে সোয়া ১১ কোটি টাকা ডাকাতি হয়। ওই দিন রাতে মানি প্ল্যান্ট লিংক প্রাইভেট লিমিটেডের পরিচালক আলমগীর হোসের বাদী হয়ে ডিএমপির তুরাগ থানায় একটি মামলা করেন।