০৫:২২ অপরাহ্ন, রবিবার, ২১ এপ্রিল ২০২৪

দুবাই বিমানবন্দরে মাদকসহ আটক বলিউড অভিনেত্রী

নিজস্ব সংবাদ দাতা
  • আপডেট সময় ০৯:৫৭:৪৯ পূর্বাহ্ন, মঙ্গলবার, ১৮ এপ্রিল ২০২৩
  • / ৬২ বার পড়া হয়েছে

দুবাই বিমানবন্দরে মাদকসহ আটক হয়েছেন বলিউড অভিনেত্রী ক্রিসন পেরেরা। বর্তমানে শারজায় কারাবন্দি রয়েছেন তিনি। বিমানবন্দরে ক্রিসনের কাছ থেকে একটি ট্রফি উদ্ধার করে পুলিশ। আর ওই ট্রফির মধ্য থেকেই মাদক পাওয়া গেছে বলে খবর রয়েছে।

তবে অভিনেত্রীর পরিবারের দাবি করেন, ক্রিসনকে ফাঁসানো হয়েছে। ইতোমধ্যে গণমাধ্যমে অভিনেত্রীর পরিবার জানায়, ক্রিসন রবি নামের এক ব্যক্তির ফাঁদে পড়েছিলেন। প্রথমে তিনি ক্রিসনের মা প্রমিলাকে মেসেজ করেন যে, মেয়ের প্রতিভা তিনি মেলে ধরতে চান কি না।

পরে ক্রিসনকে একটি আন্তর্জাতিক ওয়েব সিরিজে অভিনয়ের প্রস্তাব দেওয়া হয়। সেই সঙ্গে বেশ কয়েকবার দেখা করার পর দুবাইতে ১ এপ্রিল ক্রিসনের অডিশনের ব্যবস্থা করেন ওই ব্যক্তি। আর দুবাই যাওয়ার সমস্ত ব্যবস্থা তিনিই করেছিলেন। অভিনেত্রীর পরিবারের পক্ষ থেকে আরও জানানো হয়, ক্রিসন দুবাই যাওয়ার আগে অভিযুক্তরা মুম্বাই বিমানবন্দর থেকে ১০ মিনিট দূরে একটি কফি শপে তার সঙ্গে অভিনেত্রীর সঙ্গে দেখা করে তার হাতে একটি ট্রফি দেওয়া হয় এবং ক্রিসনকে বলা হয় ট্রফিটি অডিশনের চিত্রনাট্যের অংশ ও অডিশনের জন্য এটা প্রয়োজন হবে।

মূলত সে কারণেই, ক্রিসন সঙ্গে করে ট্রফিটি নিয়ে যান। আর ওই ট্রফির মধ্যেই মাদক পাওয়া গেছে বলে খবর এসেছে। জানা গেছে, ইতোমধ্যে দুবাইতে ক্রিসনের জন্য একজন আইনজীবী নিয়োগ করা হয়েছে। যার জন্য প্রায় ১৩ লাখ টাকা খরচ হবে। এ ছাড়া আর কোনো অফিসিয়াল চার্জ বা জরিমানা আছে কী না, সেটা এখনও জানা যায়নি। প্রসঙ্গত, সর্বশেষ মহেশ ভাটের ‘সড়ক ২’ সিনেমাতে অভিনয় করেছিলেন ক্রিসন।

ট্যাগস

নিউজটি শেয়ার করুন

দুবাই বিমানবন্দরে মাদকসহ আটক বলিউড অভিনেত্রী

আপডেট সময় ০৯:৫৭:৪৯ পূর্বাহ্ন, মঙ্গলবার, ১৮ এপ্রিল ২০২৩

দুবাই বিমানবন্দরে মাদকসহ আটক হয়েছেন বলিউড অভিনেত্রী ক্রিসন পেরেরা। বর্তমানে শারজায় কারাবন্দি রয়েছেন তিনি। বিমানবন্দরে ক্রিসনের কাছ থেকে একটি ট্রফি উদ্ধার করে পুলিশ। আর ওই ট্রফির মধ্য থেকেই মাদক পাওয়া গেছে বলে খবর রয়েছে।

তবে অভিনেত্রীর পরিবারের দাবি করেন, ক্রিসনকে ফাঁসানো হয়েছে। ইতোমধ্যে গণমাধ্যমে অভিনেত্রীর পরিবার জানায়, ক্রিসন রবি নামের এক ব্যক্তির ফাঁদে পড়েছিলেন। প্রথমে তিনি ক্রিসনের মা প্রমিলাকে মেসেজ করেন যে, মেয়ের প্রতিভা তিনি মেলে ধরতে চান কি না।

পরে ক্রিসনকে একটি আন্তর্জাতিক ওয়েব সিরিজে অভিনয়ের প্রস্তাব দেওয়া হয়। সেই সঙ্গে বেশ কয়েকবার দেখা করার পর দুবাইতে ১ এপ্রিল ক্রিসনের অডিশনের ব্যবস্থা করেন ওই ব্যক্তি। আর দুবাই যাওয়ার সমস্ত ব্যবস্থা তিনিই করেছিলেন। অভিনেত্রীর পরিবারের পক্ষ থেকে আরও জানানো হয়, ক্রিসন দুবাই যাওয়ার আগে অভিযুক্তরা মুম্বাই বিমানবন্দর থেকে ১০ মিনিট দূরে একটি কফি শপে তার সঙ্গে অভিনেত্রীর সঙ্গে দেখা করে তার হাতে একটি ট্রফি দেওয়া হয় এবং ক্রিসনকে বলা হয় ট্রফিটি অডিশনের চিত্রনাট্যের অংশ ও অডিশনের জন্য এটা প্রয়োজন হবে।

মূলত সে কারণেই, ক্রিসন সঙ্গে করে ট্রফিটি নিয়ে যান। আর ওই ট্রফির মধ্যেই মাদক পাওয়া গেছে বলে খবর এসেছে। জানা গেছে, ইতোমধ্যে দুবাইতে ক্রিসনের জন্য একজন আইনজীবী নিয়োগ করা হয়েছে। যার জন্য প্রায় ১৩ লাখ টাকা খরচ হবে। এ ছাড়া আর কোনো অফিসিয়াল চার্জ বা জরিমানা আছে কী না, সেটা এখনও জানা যায়নি। প্রসঙ্গত, সর্বশেষ মহেশ ভাটের ‘সড়ক ২’ সিনেমাতে অভিনয় করেছিলেন ক্রিসন।