০৮:১৭ অপরাহ্ন, সোমবার, ১৭ জুন ২০২৪

বাংলাদেশে নিরাপদ পানির অভাব : তাজুল ইসলাম

নিজস্ব সংবাদ দাতা
  • আপডেট সময় ০৯:২১:২৫ অপরাহ্ন, বুধবার, ২২ মার্চ ২০২৩
  • / ৫০ বার পড়া হয়েছে

স্থানীয় সরকার মন্ত্রী তাজুল ইসলাম বলেছেন,কৃষি এবং শিল্পায়নের জন্য পানি গুরুত্বপূর্ণ। বাংলাদেশে পানির সংকট নেই, কিন্তু নিরাপদ পানির অভাব। ঢাকায় এটা আরও প্রকট। কারণ, ঢাকায় নদী দূষিত। এজন্য সুয়ারেজ ট্রিটমেন্ট প্ল্যান্ট স্থাপন করা হয়েছে। এছাড়া বিভিন্ন উন্নয়ন প্রকল্প চলমান আছে।

বুধবার (২২ মার্চ) রাজধানীর একটি হোটেলে বিশ্ব পানি দিবস-২০২৩ উপলক্ষে আয়োজিত ‘পানি ও স্যানিটেশন সংকট সমাধানে পরিবর্তন ত্বরান্বিত করা’ শীর্ষক এক সেমিনারে প্রধান অতিথির বক্তব্যে এসব কথা বলেন তিনি।

তাজুল ইসলাম বলেন, গত ১০ বছরে বাজেট বেড়েছে ৪ শতাংশের বেশি। সেই সাথে পানি ও স্বাস্থ্যসেবা খাতেও বরাদ্দ বেড়েছে। আমরা বরাদ্দের যথাযথ ব্যবহার নিশ্চিত করছি। সুতরাং আমরা নিরাপদ পানি ও স্বাস্থ্যসেবা নিশ্চিতে কাজ করছি।

তিনি বলেন, আমি মনে করি, এসডিজি বাস্তবায়ন একটি বড় চ্যালেঞ্জ। শুধু বাংলাদেশ নয়, সারা বিশ্বের জন্য। রাশিয়া-ইউক্রেন যুদ্ধ এবং চলমান অর্থনৈতিক অস্থিরতা এর মূল কারণ। এজন্য স্বল্পোন্নত, উন্নত, উন্নয়নশীল সব দেশকে একসাথে কাজ করতে হবে।

ট্যাগস

নিউজটি শেয়ার করুন

বাংলাদেশে নিরাপদ পানির অভাব : তাজুল ইসলাম

আপডেট সময় ০৯:২১:২৫ অপরাহ্ন, বুধবার, ২২ মার্চ ২০২৩

স্থানীয় সরকার মন্ত্রী তাজুল ইসলাম বলেছেন,কৃষি এবং শিল্পায়নের জন্য পানি গুরুত্বপূর্ণ। বাংলাদেশে পানির সংকট নেই, কিন্তু নিরাপদ পানির অভাব। ঢাকায় এটা আরও প্রকট। কারণ, ঢাকায় নদী দূষিত। এজন্য সুয়ারেজ ট্রিটমেন্ট প্ল্যান্ট স্থাপন করা হয়েছে। এছাড়া বিভিন্ন উন্নয়ন প্রকল্প চলমান আছে।

বুধবার (২২ মার্চ) রাজধানীর একটি হোটেলে বিশ্ব পানি দিবস-২০২৩ উপলক্ষে আয়োজিত ‘পানি ও স্যানিটেশন সংকট সমাধানে পরিবর্তন ত্বরান্বিত করা’ শীর্ষক এক সেমিনারে প্রধান অতিথির বক্তব্যে এসব কথা বলেন তিনি।

তাজুল ইসলাম বলেন, গত ১০ বছরে বাজেট বেড়েছে ৪ শতাংশের বেশি। সেই সাথে পানি ও স্বাস্থ্যসেবা খাতেও বরাদ্দ বেড়েছে। আমরা বরাদ্দের যথাযথ ব্যবহার নিশ্চিত করছি। সুতরাং আমরা নিরাপদ পানি ও স্বাস্থ্যসেবা নিশ্চিতে কাজ করছি।

তিনি বলেন, আমি মনে করি, এসডিজি বাস্তবায়ন একটি বড় চ্যালেঞ্জ। শুধু বাংলাদেশ নয়, সারা বিশ্বের জন্য। রাশিয়া-ইউক্রেন যুদ্ধ এবং চলমান অর্থনৈতিক অস্থিরতা এর মূল কারণ। এজন্য স্বল্পোন্নত, উন্নত, উন্নয়নশীল সব দেশকে একসাথে কাজ করতে হবে।