০২:০১ অপরাহ্ন, রবিবার, ১৪ এপ্রিল ২০২৪

ভাত খেতে না পেয়ে মানুষ কি উন্নয়ন ধুয়ে খাবে : ফখরুল

নিজস্ব সংবাদ দাতা
  • আপডেট সময় ০৫:০৯:০১ অপরাহ্ন, শুক্রবার, ১০ মার্চ ২০২৩
  • / ৭২ বার পড়া হয়েছে

দ্রব্যমূল্যের ঊর্ধগতিতে মানুষ দিশেহারা উল্লেখ করে বিএনপি মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর বলেছেন, ১০ টাকার কথা বলে সরকার এখন ৭০ টাকায় মোটা চাল খাওয়াচ্ছে। ভাত খেতে না পেয়ে মানুষ কি এখন আওয়ামী লীগ সরকারের উন্নয়ন ধুয়ে খাবে।

শুক্রবার (১০ মার্চ) সকালে সিলেট মহানগর বিএনপির দ্বি-বার্ষিক কাউন্সিলে প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এসব কথা বলেন। মির্জা ফখরুল বলেন, আওয়ামী লীগ সংবিধানকে বারবার কাটা-ছেড়া করে অকার্যকর করে দিয়েছে।

এই সরকার দেশের নির্বাচন ব্যবস্থা ও অর্থনীতিকে ধ্বংস করে দিয়েছে। দেশে আজ আইনের শাসন নেই। তিনি বলেন, দেশের মানুষ আওয়ামী লীগের অধীনে সুষ্ঠু নির্বাচন হবে বলে বিশ্বাস করে না। তাই নতুন নির্বাচন কমিশন গঠন করতে হবে। যাতে জনগণ ভোট দিয়ে তাদের পছন্দের নেতা নির্বাচন করতে পারে।

এ সময় উপস্থিত ছিলেন বিএনপি চেয়ারপারসনের উপদেষ্টা তাহসীনা রুশদী লুনা, খন্দকার আব্দুল মুক্তাদির, ড. এনামুল হক, বিএনপির সাংগঠনিক সম্পাদক ডা. সাখাওয়াত হাসান জীবন, সহসাংগঠনিক সম্পাদক কলিম উদ্দিন মিলন, কেন্দ্রীয় নির্বাহী সদস্য ও সিটি মেয়র আরিফুল হক চৌধুরী, জেলা বিএনপির সভাপতি আব্দুল কাইয়ুম চৌধুরী প্রমুখ।

ট্যাগস

নিউজটি শেয়ার করুন

ভাত খেতে না পেয়ে মানুষ কি উন্নয়ন ধুয়ে খাবে : ফখরুল

আপডেট সময় ০৫:০৯:০১ অপরাহ্ন, শুক্রবার, ১০ মার্চ ২০২৩

দ্রব্যমূল্যের ঊর্ধগতিতে মানুষ দিশেহারা উল্লেখ করে বিএনপি মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর বলেছেন, ১০ টাকার কথা বলে সরকার এখন ৭০ টাকায় মোটা চাল খাওয়াচ্ছে। ভাত খেতে না পেয়ে মানুষ কি এখন আওয়ামী লীগ সরকারের উন্নয়ন ধুয়ে খাবে।

শুক্রবার (১০ মার্চ) সকালে সিলেট মহানগর বিএনপির দ্বি-বার্ষিক কাউন্সিলে প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এসব কথা বলেন। মির্জা ফখরুল বলেন, আওয়ামী লীগ সংবিধানকে বারবার কাটা-ছেড়া করে অকার্যকর করে দিয়েছে।

এই সরকার দেশের নির্বাচন ব্যবস্থা ও অর্থনীতিকে ধ্বংস করে দিয়েছে। দেশে আজ আইনের শাসন নেই। তিনি বলেন, দেশের মানুষ আওয়ামী লীগের অধীনে সুষ্ঠু নির্বাচন হবে বলে বিশ্বাস করে না। তাই নতুন নির্বাচন কমিশন গঠন করতে হবে। যাতে জনগণ ভোট দিয়ে তাদের পছন্দের নেতা নির্বাচন করতে পারে।

এ সময় উপস্থিত ছিলেন বিএনপি চেয়ারপারসনের উপদেষ্টা তাহসীনা রুশদী লুনা, খন্দকার আব্দুল মুক্তাদির, ড. এনামুল হক, বিএনপির সাংগঠনিক সম্পাদক ডা. সাখাওয়াত হাসান জীবন, সহসাংগঠনিক সম্পাদক কলিম উদ্দিন মিলন, কেন্দ্রীয় নির্বাহী সদস্য ও সিটি মেয়র আরিফুল হক চৌধুরী, জেলা বিএনপির সভাপতি আব্দুল কাইয়ুম চৌধুরী প্রমুখ।