০৬:২৬ পূর্বাহ্ন, সোমবার, ২০ মে ২০২৪

‘যুক্তরাষ্ট্র কোনো একক দল ও প্রার্থীকে সমর্থন করে না’

নিজস্ব সংবাদ দাতা
  • আপডেট সময় ০৯:৪২:৪১ পূর্বাহ্ন, বৃহস্পতিবার, ৪ মে ২০২৩
  • / ৫৫ বার পড়া হয়েছে

মার্কিন পররাষ্ট্র দপ্তরের উপপ্রধান মুখপাত্র বেদান্ত প্যাটেল বলেছেন, যুক্তরাষ্ট্র বিশ্বের অন্যান্য অঞ্চলের মত বাংলাদেশে সুষ্ঠু, অবাধ ও নিরপেক্ষ নির্বাচন অনুষ্ঠানকে সমর্থন করে থাকে। যুক্তরাষ্ট্র কোনো একক দল ও প্রার্থীকে সমর্থন করে না।

মঙ্গলবার (২ মে) ওয়াশিংটনে নিয়মিত ব্রিফিংয়ে বাংলাদেশ বংশোদ্ভূত এক সাংবাদিকের এক প্রশ্নের জবাবে এসব কথা বলেন তিনি। বেদান্ত প্যাটেল বলেন, বাংলাদেশ যুক্তরাষ্ট্রের কাছে অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ণ রাষ্ট্র। নিরাপত্তা, জলবায়ু ও অর্থনৈতিক সহযোগিতাসহ বিভিন্ন ক্ষেত্রে বাংলাদেশের সঙ্গে সম্পর্ক ও অংশীদারত্ব গভীরতর করার জন্য যুক্তরাষ্ট্র চেষ্টা চালিয়ে যাচ্ছে। বেদান্ত প্যাটেলের দাবি, বিশ্বের সব দেশে যুক্তরাষ্ট্রের দূতাবাসগুলোর মত ঢাকার দূতাবাসও দ্বিপক্ষীয় সম্পর্কের দেখভাল করে থাকে।

পররাষ্ট্র দপ্তরের উপপ্রধান মুখপাত্রের ভাষ্য, দ্বিপক্ষীয় সম্পর্ক ও যুক্তরাষ্ট্রের আঞ্চলিক অগ্রাধিকারগুলোর ওপর প্রভাব পড়তে পারে, এমন বিষয়ে বন্ধুদেশ ও অংশীদারদের সঙ্গে আলাপ-আলোচনায় জোর দেওয়া হয়ে থাকে। তিনি আরও যোগ করেন, ২০২২ সালে আমরা বাংলাদেশের সঙ্গে দ্বিপক্ষীয় সম্পর্কের ৫০ বছর উদযাপন করেছি। আর আমরা বিশ্বাস করি, এখানে এমন অনেক বিষয় রয়েছে, যাতে আমরা আমাদের সহযোগিতাকে আরও গভীর করতে পারি। এটি শুধু বাংলাদেশ সরকারের সঙ্গে নয়, বাংলাদেশের জনগণের সঙ্গেও।

এদিকে বিশ্বব্যাংকের সঙ্গে ৫০ বছরের সম্পর্ক শীর্ষ অনুষ্ঠানে যোগদানের জন্য ওয়াশিংটনে গেছেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। এ ছাড়া ব্রিটিশ রাজা চার্লসের অভিষেকে যোগ দেওয়ার কথাও রয়েছে শেখ হাসিনার। এজন্য বৃহস্পতিবার তার (শেখ হাসিনা) লন্ডনে রওনা হওয়ার কথা রয়েছে।

ট্যাগস

নিউজটি শেয়ার করুন

‘যুক্তরাষ্ট্র কোনো একক দল ও প্রার্থীকে সমর্থন করে না’

আপডেট সময় ০৯:৪২:৪১ পূর্বাহ্ন, বৃহস্পতিবার, ৪ মে ২০২৩

মার্কিন পররাষ্ট্র দপ্তরের উপপ্রধান মুখপাত্র বেদান্ত প্যাটেল বলেছেন, যুক্তরাষ্ট্র বিশ্বের অন্যান্য অঞ্চলের মত বাংলাদেশে সুষ্ঠু, অবাধ ও নিরপেক্ষ নির্বাচন অনুষ্ঠানকে সমর্থন করে থাকে। যুক্তরাষ্ট্র কোনো একক দল ও প্রার্থীকে সমর্থন করে না।

মঙ্গলবার (২ মে) ওয়াশিংটনে নিয়মিত ব্রিফিংয়ে বাংলাদেশ বংশোদ্ভূত এক সাংবাদিকের এক প্রশ্নের জবাবে এসব কথা বলেন তিনি। বেদান্ত প্যাটেল বলেন, বাংলাদেশ যুক্তরাষ্ট্রের কাছে অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ণ রাষ্ট্র। নিরাপত্তা, জলবায়ু ও অর্থনৈতিক সহযোগিতাসহ বিভিন্ন ক্ষেত্রে বাংলাদেশের সঙ্গে সম্পর্ক ও অংশীদারত্ব গভীরতর করার জন্য যুক্তরাষ্ট্র চেষ্টা চালিয়ে যাচ্ছে। বেদান্ত প্যাটেলের দাবি, বিশ্বের সব দেশে যুক্তরাষ্ট্রের দূতাবাসগুলোর মত ঢাকার দূতাবাসও দ্বিপক্ষীয় সম্পর্কের দেখভাল করে থাকে।

পররাষ্ট্র দপ্তরের উপপ্রধান মুখপাত্রের ভাষ্য, দ্বিপক্ষীয় সম্পর্ক ও যুক্তরাষ্ট্রের আঞ্চলিক অগ্রাধিকারগুলোর ওপর প্রভাব পড়তে পারে, এমন বিষয়ে বন্ধুদেশ ও অংশীদারদের সঙ্গে আলাপ-আলোচনায় জোর দেওয়া হয়ে থাকে। তিনি আরও যোগ করেন, ২০২২ সালে আমরা বাংলাদেশের সঙ্গে দ্বিপক্ষীয় সম্পর্কের ৫০ বছর উদযাপন করেছি। আর আমরা বিশ্বাস করি, এখানে এমন অনেক বিষয় রয়েছে, যাতে আমরা আমাদের সহযোগিতাকে আরও গভীর করতে পারি। এটি শুধু বাংলাদেশ সরকারের সঙ্গে নয়, বাংলাদেশের জনগণের সঙ্গেও।

এদিকে বিশ্বব্যাংকের সঙ্গে ৫০ বছরের সম্পর্ক শীর্ষ অনুষ্ঠানে যোগদানের জন্য ওয়াশিংটনে গেছেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। এ ছাড়া ব্রিটিশ রাজা চার্লসের অভিষেকে যোগ দেওয়ার কথাও রয়েছে শেখ হাসিনার। এজন্য বৃহস্পতিবার তার (শেখ হাসিনা) লন্ডনে রওনা হওয়ার কথা রয়েছে।