০৮:৪৬ পূর্বাহ্ন, শনিবার, ২২ জুন ২০২৪

সরকার মেগা দুর্নীতির মাধ্যমে দেশের অর্থনীতি ধ্বংস করছে : মোশাররফ

নিজস্ব সংবাদ দাতা
  • আপডেট সময় ০৬:৫৭:৩০ অপরাহ্ন, শনিবার, ৬ মে ২০২৩
  • / ৫৩ বার পড়া হয়েছে

বিএনপির স্থায়ী কমিটির সদস্য ড. খন্দকার মোশাররফ হোসেন বলেছেন, সরকার মেগা প্রজেক্টের নামে মেগা দুর্নীতি করে দেশের টাকা বিদেশে পাচার করে দেশের অর্থনীতিকে ধ্বংস করছে। শনিবার (৬ মে) জাতীয় প্রেস ক্লাবের সামনের সড়কে বিএনপি চেয়ারপারসন খালেদা জিয়ার মুক্তির দাবিতে মুক্তিযোদ্ধা দল আয়োজিত মানববন্ধনে তিনি এ কথা বলেন।

খন্দকার মোশাররফ হোসেন বলেন, সরকার দ্রব্যমূল্যের ঊর্ধ্বগতি ঠেকাতে পারছে না। আওয়ামী সিন্ডিকেটের লোকেরা দেশের মানুষের পকেট কেটে বিদেশে পাচার করার কারণে অর্থনীতির এ অবস্থার হয়েছে। আজকে মধ্যবিত্তরা গরিব হয়ে যাচ্ছে। পেট চালাতে পারছে না। গরিব আরও গরিব হচ্ছে। এই অবস্থা বাংলাদেশের মানুষ সবাই ঐক্যবদ্ধ। এই সরকারের হাত থেকে মানুষকে মুক্ত করতে হবে। তারা ১৯৭২-৭৫ সালেও একইভাবে দেশের অর্থনীতিকে ধ্বংস করেছিল। এরাই গণতন্ত্রকে ধ্বংস করেছে, পদদলিত করেছে।

তিনি বলেন, কোনো স্বৈরাচার সরকার আপসে ক্ষমতা ছাড়েনি। আওয়ামী লীগও ছাড়বে না। তাই শেখ হাসিনাকে ক্ষমতা থেকে হটিয়ে গণতন্ত্র পুনরুদ্ধার, খালেদা জিয়ার মুক্তির জন্য গণআন্দোলন সৃষ্টি করতে হবে। গণআন্দোলন ছাড়া বিকল্প নেই। পাকিস্তান আমলে গণআন্দোলনের মাধ্যমে আইয়ুব খানকে বিদায় করা হয়েছিল। বাংলাদেশেও এরশাদকে গণআন্দোলনের মাধ্যমে বিদায় করা হয়েছে।

বিএনপির এ নেতা বলেন, আগামী নির্বাচনকে শেখ হাসিনা মুক্ত নির্বাচন হতে হবে। তার অধীনে কোনো নির্বাচন হবে না। অতীতের নির্বাচনগুলোতে প্রমাণ হয়েছে, শেখ হাসিনার অধীনে নির্দলীয় অংশগ্রহণমূলক সুষ্ঠু নির্বাচন হয়নি, ভবিষ্যতে হতে পারে না। তাই সময় অতি সন্নিকটে, দেশের মানুষ ঐক্যবদ্ধ। অনতিবিলম্বে গণঅভ্যুত্থানের মাধ্যমে এই সরকারকে বিদায় দিয়ে মানুষকে মুক্ত করব।

মুক্তিযোদ্ধা দলের সভাপতি ইসতিয়াক আজিজ উলফাতের সভাপতিত্বে আয়োজিত মানববন্ধনে আরও বক্তব্য রাখেন বিএনপি চেয়ারপারসনের উপদেষ্টা পরিষদের সদস্য জয়নাল আবেদীন ফারুক, কল্যাণ পার্টির চেয়ারম্যান সৈয়দ মোহাম্মদ ইবরাহিম, বিএনপির যগ্ম মহাসচিব মোয়াজ্জেম হোসেন আলাল প্রমুখ।

ট্যাগস

নিউজটি শেয়ার করুন

সরকার মেগা দুর্নীতির মাধ্যমে দেশের অর্থনীতি ধ্বংস করছে : মোশাররফ

আপডেট সময় ০৬:৫৭:৩০ অপরাহ্ন, শনিবার, ৬ মে ২০২৩

বিএনপির স্থায়ী কমিটির সদস্য ড. খন্দকার মোশাররফ হোসেন বলেছেন, সরকার মেগা প্রজেক্টের নামে মেগা দুর্নীতি করে দেশের টাকা বিদেশে পাচার করে দেশের অর্থনীতিকে ধ্বংস করছে। শনিবার (৬ মে) জাতীয় প্রেস ক্লাবের সামনের সড়কে বিএনপি চেয়ারপারসন খালেদা জিয়ার মুক্তির দাবিতে মুক্তিযোদ্ধা দল আয়োজিত মানববন্ধনে তিনি এ কথা বলেন।

খন্দকার মোশাররফ হোসেন বলেন, সরকার দ্রব্যমূল্যের ঊর্ধ্বগতি ঠেকাতে পারছে না। আওয়ামী সিন্ডিকেটের লোকেরা দেশের মানুষের পকেট কেটে বিদেশে পাচার করার কারণে অর্থনীতির এ অবস্থার হয়েছে। আজকে মধ্যবিত্তরা গরিব হয়ে যাচ্ছে। পেট চালাতে পারছে না। গরিব আরও গরিব হচ্ছে। এই অবস্থা বাংলাদেশের মানুষ সবাই ঐক্যবদ্ধ। এই সরকারের হাত থেকে মানুষকে মুক্ত করতে হবে। তারা ১৯৭২-৭৫ সালেও একইভাবে দেশের অর্থনীতিকে ধ্বংস করেছিল। এরাই গণতন্ত্রকে ধ্বংস করেছে, পদদলিত করেছে।

তিনি বলেন, কোনো স্বৈরাচার সরকার আপসে ক্ষমতা ছাড়েনি। আওয়ামী লীগও ছাড়বে না। তাই শেখ হাসিনাকে ক্ষমতা থেকে হটিয়ে গণতন্ত্র পুনরুদ্ধার, খালেদা জিয়ার মুক্তির জন্য গণআন্দোলন সৃষ্টি করতে হবে। গণআন্দোলন ছাড়া বিকল্প নেই। পাকিস্তান আমলে গণআন্দোলনের মাধ্যমে আইয়ুব খানকে বিদায় করা হয়েছিল। বাংলাদেশেও এরশাদকে গণআন্দোলনের মাধ্যমে বিদায় করা হয়েছে।

বিএনপির এ নেতা বলেন, আগামী নির্বাচনকে শেখ হাসিনা মুক্ত নির্বাচন হতে হবে। তার অধীনে কোনো নির্বাচন হবে না। অতীতের নির্বাচনগুলোতে প্রমাণ হয়েছে, শেখ হাসিনার অধীনে নির্দলীয় অংশগ্রহণমূলক সুষ্ঠু নির্বাচন হয়নি, ভবিষ্যতে হতে পারে না। তাই সময় অতি সন্নিকটে, দেশের মানুষ ঐক্যবদ্ধ। অনতিবিলম্বে গণঅভ্যুত্থানের মাধ্যমে এই সরকারকে বিদায় দিয়ে মানুষকে মুক্ত করব।

মুক্তিযোদ্ধা দলের সভাপতি ইসতিয়াক আজিজ উলফাতের সভাপতিত্বে আয়োজিত মানববন্ধনে আরও বক্তব্য রাখেন বিএনপি চেয়ারপারসনের উপদেষ্টা পরিষদের সদস্য জয়নাল আবেদীন ফারুক, কল্যাণ পার্টির চেয়ারম্যান সৈয়দ মোহাম্মদ ইবরাহিম, বিএনপির যগ্ম মহাসচিব মোয়াজ্জেম হোসেন আলাল প্রমুখ।