০৪:৫৫ পূর্বাহ্ন, সোমবার, ২০ মে ২০২৪

সিদ্দিকবাজারে বিস্ফোরণ : দ্বিতীয় দিনের উদ্ধারকাজ শুরু

নিজস্ব সংবাদ দাতা
  • আপডেট সময় ১০:৪৪:১১ পূর্বাহ্ন, বুধবার, ৮ মার্চ ২০২৩
  • / ৪৫ বার পড়া হয়েছে

রাজধানীর গুলিস্তানের সিদ্দিকবাজারের বিস্ফোরণ হওয়া ভবনটিতে দ্বিতীয় দিনের উদ্ধার কাজ শুরু করেছে সেনাবাহিনীর সদস্যরা। বুধবার (৮ মার্চ) সকালে সেনা সদস্যদের নেতৃত্বে উদ্ধারকাজ শুরু হয় বলে জানান, ফায়ার সার্ভিসের ঢাকা বিভাগীয় উপপরিচালক দিনমনি শর্মা।

তিনি বলেন, মঙ্গলবার রাত ১১টায় আমরা ভবনটিতে উদ্ধার অভিযান সাময়িকভাবে স্থগিত করি। এ সময় আমরা পরীক্ষা-নিরীক্ষা করে দেখেছি বিস্ফোরণের ফলে ভবনটির বেজমেন্ট মারাত্মকভাবে ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছে। ফলে ভবনটি ঝুঁকিপূর্ণ অবস্থায় রয়েছে ও যেকোনো সময় ধসে পড়তে পারে। এ অবস্থায় ভবনটিতে উদ্ধার অভিযান চালানো খুবই ঝুঁকিপূর্ণ।

ফায়ার সার্ভিসের এ সদস্য বলেন, বুধবার সকালে সেনা সদস্যদের নেতৃত্বে উদ্ধারকাজ শুরু হয়েছে। সেনাবাহিনীর লোকজন ভবনটিকে সাময়িকভাবে স্টেবল করবে। ভবনটি স্টেবল হওয়ার পর আমরা পুনরায় উদ্ধার অভিযান শুরু করব। আমরা মূলত ভবনটির বেজমেন্টে অভিযান পরিচালনা করব।

এর আগে মঙ্গলবার (৭ মার্চ) বিকেল ৪টা ৫০ মিনিটের দিকে সিদ্দিকবাজারে ওই ভয়াবহ বিস্ফোরণে ১৯ জন নিহত হন। নিহতদের মধ্যে ১৭ জনের পরিচয় পাওয়া গেছে। তারা হলেন মো. সুমন (২১), ইসহাক মৃধা (৩৫), মুনসুর হোসেন (৪০), মো. ইসমাইল (৪২), আল আমিন (২৩), রাহাত (১৮), মমিনুল ইসলাম (৩৮), নদী বেগম (৩৬), মাঈন উদ্দিন (৫০), নাজমুল হোসেন (২৫), ওবায়দুল হাসান বাবুল (৫৫), আবু জাফর সিদ্দিক (৩৪), আকুতি বেগম (৭০), মো. ইদ্রিস (৬০), হৃদয় (২০), নুরুল ইসলাম ভূঁইয়া ৫৫), মো. সিয়াম (১৯)।

ট্যাগস

নিউজটি শেয়ার করুন

সিদ্দিকবাজারে বিস্ফোরণ : দ্বিতীয় দিনের উদ্ধারকাজ শুরু

আপডেট সময় ১০:৪৪:১১ পূর্বাহ্ন, বুধবার, ৮ মার্চ ২০২৩

রাজধানীর গুলিস্তানের সিদ্দিকবাজারের বিস্ফোরণ হওয়া ভবনটিতে দ্বিতীয় দিনের উদ্ধার কাজ শুরু করেছে সেনাবাহিনীর সদস্যরা। বুধবার (৮ মার্চ) সকালে সেনা সদস্যদের নেতৃত্বে উদ্ধারকাজ শুরু হয় বলে জানান, ফায়ার সার্ভিসের ঢাকা বিভাগীয় উপপরিচালক দিনমনি শর্মা।

তিনি বলেন, মঙ্গলবার রাত ১১টায় আমরা ভবনটিতে উদ্ধার অভিযান সাময়িকভাবে স্থগিত করি। এ সময় আমরা পরীক্ষা-নিরীক্ষা করে দেখেছি বিস্ফোরণের ফলে ভবনটির বেজমেন্ট মারাত্মকভাবে ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছে। ফলে ভবনটি ঝুঁকিপূর্ণ অবস্থায় রয়েছে ও যেকোনো সময় ধসে পড়তে পারে। এ অবস্থায় ভবনটিতে উদ্ধার অভিযান চালানো খুবই ঝুঁকিপূর্ণ।

ফায়ার সার্ভিসের এ সদস্য বলেন, বুধবার সকালে সেনা সদস্যদের নেতৃত্বে উদ্ধারকাজ শুরু হয়েছে। সেনাবাহিনীর লোকজন ভবনটিকে সাময়িকভাবে স্টেবল করবে। ভবনটি স্টেবল হওয়ার পর আমরা পুনরায় উদ্ধার অভিযান শুরু করব। আমরা মূলত ভবনটির বেজমেন্টে অভিযান পরিচালনা করব।

এর আগে মঙ্গলবার (৭ মার্চ) বিকেল ৪টা ৫০ মিনিটের দিকে সিদ্দিকবাজারে ওই ভয়াবহ বিস্ফোরণে ১৯ জন নিহত হন। নিহতদের মধ্যে ১৭ জনের পরিচয় পাওয়া গেছে। তারা হলেন মো. সুমন (২১), ইসহাক মৃধা (৩৫), মুনসুর হোসেন (৪০), মো. ইসমাইল (৪২), আল আমিন (২৩), রাহাত (১৮), মমিনুল ইসলাম (৩৮), নদী বেগম (৩৬), মাঈন উদ্দিন (৫০), নাজমুল হোসেন (২৫), ওবায়দুল হাসান বাবুল (৫৫), আবু জাফর সিদ্দিক (৩৪), আকুতি বেগম (৭০), মো. ইদ্রিস (৬০), হৃদয় (২০), নুরুল ইসলাম ভূঁইয়া ৫৫), মো. সিয়াম (১৯)।