০৯:৫৮ অপরাহ্ন, শনিবার, ০৯ ডিসেম্বর ২০২৩

সিনেমায় কাজ নেই, চাকরি করছেন নায়িকা

নিজস্ব সংবাদ দাতা
  • আপডেট সময় ০৫:৫৩:৩২ অপরাহ্ন, মঙ্গলবার, ১৮ এপ্রিল ২০২৩
  • / ৪৪ বার পড়া হয়েছে

অনেক দিন ধরেই কোনো খবরে নেই চিত্রনায়িকা আইরিন সুলতানা। ঢালিউড অন্দরমহলে ভেসে বেড়াচ্ছিল অভিনয় ছেড়ে দিয়েছেন তিনি। তবে এর পক্ষে নির্ভরযোগ্য কোনো প্রমাণ পাওয়া যাচ্ছিল না।

আইরিনকে সবশেষ দেখা গিয়েছিল গত বছর মুক্তি পাওয়া ‘কাগজ’ সিনেমায়। সিনেমাটির প্রচারেও তাকে সেভাবে দেখা যায়নি। এরপর আর কোনো সিনেমা মুক্তি পায়নি তার। সম্প্রতি দেশের একটি গণমাধ্যমকে দেওয়া সাক্ষাৎকারে তিনি জানিয়েছেন, বর্তমানে হাতে কোনো সিনেমার কাজ নেই। তাই চাকরি করছেন এখন।

আইরিন বলেন, ‘আমি প্রচারবিমুখ মানুষ। ঢাকঢোল পিটিয়ে কাজের খবর দিতে ভালো লাগে না। হ্যাঁ, এটি সত্যি যে হাতে নতুন সিনেমা নেই। সেরকম গল্প ও চরিত্র পাচ্ছিলাম না বলে সিনেমার কাজে দেখা যায়নি। চলতি মাসে বেশ কয়েকটি টিভি শো নিয়েই ব্যস্ততা গেছে।’ অভিনয় ছাড়া প্রসঙ্গে তিনি বলেন, ‘এ রকম প্রশ্নের মুখোমুখি প্রায়ই হতে হয়। অভিনয় ছাড়ার কথা কখনও বলিনি। অভিনয়ে আমি অনিয়মিত, এতে লুকোচুরির কিছু নেই। কারণ, অভিনয়ের পাশাপাশি চাকরি করছি। ৯টা-৫টার চাকা ঘোরাতে হয়। এক বছর হলো চাকরি নিয়েছি।’

তিনি আরও বলেন, ‘ক্যারিয়ারের শুরুতে অনেকের কাছে শুনতে হয়েছিল, মডেলিং থেকে আসা মেয়েকে দিয়ে অভিনয় হবে না। কখনও হাল ছাড়ি না। নিন্দুকের কথায়ও কান দিইনি। আর সিনেমার অবস্থা বেশি ভালো নয়। হলগুলো একে একে বন্ধ হয়ে যাচ্ছে। বাজেটও কম। চাইলেও সিনেমার কাজ নিয়ে ব্যস্ত থাকা সম্ভব নয়। সিনেমায় খুব বেশি কাজ করতে হবে — তা আমি মনে করি না। সংখ্যায় কম হলেও ভালো কাজ করতে চাই। সময়-সুযোগ হলে আবার পুরোদমে কাজে ফিরব।’

প্রসঙ্গত, চাকরিতে নিয়মিত হলেও বেশ কয়েকটি সিনেমার কাজ শেষ করেছেন আইরিন। সেগুলো হলো, বুলবুল জিলানীর ‘রৌদ্র ছায়া’, আবু সাইয়ীদের ‘একজন কবির মৃত্যু’, জেসমিন আক্তার নদীর ‘চৈত্রের দুপুর’ এবং পশ্চিমবঙ্গের ‘শিবরাত্রী’। এই সিনেমাগুলো মুক্তির অপেক্ষায় রয়েছে।

ট্যাগস

নিউজটি শেয়ার করুন

সিনেমায় কাজ নেই, চাকরি করছেন নায়িকা

আপডেট সময় ০৫:৫৩:৩২ অপরাহ্ন, মঙ্গলবার, ১৮ এপ্রিল ২০২৩

অনেক দিন ধরেই কোনো খবরে নেই চিত্রনায়িকা আইরিন সুলতানা। ঢালিউড অন্দরমহলে ভেসে বেড়াচ্ছিল অভিনয় ছেড়ে দিয়েছেন তিনি। তবে এর পক্ষে নির্ভরযোগ্য কোনো প্রমাণ পাওয়া যাচ্ছিল না।

আইরিনকে সবশেষ দেখা গিয়েছিল গত বছর মুক্তি পাওয়া ‘কাগজ’ সিনেমায়। সিনেমাটির প্রচারেও তাকে সেভাবে দেখা যায়নি। এরপর আর কোনো সিনেমা মুক্তি পায়নি তার। সম্প্রতি দেশের একটি গণমাধ্যমকে দেওয়া সাক্ষাৎকারে তিনি জানিয়েছেন, বর্তমানে হাতে কোনো সিনেমার কাজ নেই। তাই চাকরি করছেন এখন।

আইরিন বলেন, ‘আমি প্রচারবিমুখ মানুষ। ঢাকঢোল পিটিয়ে কাজের খবর দিতে ভালো লাগে না। হ্যাঁ, এটি সত্যি যে হাতে নতুন সিনেমা নেই। সেরকম গল্প ও চরিত্র পাচ্ছিলাম না বলে সিনেমার কাজে দেখা যায়নি। চলতি মাসে বেশ কয়েকটি টিভি শো নিয়েই ব্যস্ততা গেছে।’ অভিনয় ছাড়া প্রসঙ্গে তিনি বলেন, ‘এ রকম প্রশ্নের মুখোমুখি প্রায়ই হতে হয়। অভিনয় ছাড়ার কথা কখনও বলিনি। অভিনয়ে আমি অনিয়মিত, এতে লুকোচুরির কিছু নেই। কারণ, অভিনয়ের পাশাপাশি চাকরি করছি। ৯টা-৫টার চাকা ঘোরাতে হয়। এক বছর হলো চাকরি নিয়েছি।’

তিনি আরও বলেন, ‘ক্যারিয়ারের শুরুতে অনেকের কাছে শুনতে হয়েছিল, মডেলিং থেকে আসা মেয়েকে দিয়ে অভিনয় হবে না। কখনও হাল ছাড়ি না। নিন্দুকের কথায়ও কান দিইনি। আর সিনেমার অবস্থা বেশি ভালো নয়। হলগুলো একে একে বন্ধ হয়ে যাচ্ছে। বাজেটও কম। চাইলেও সিনেমার কাজ নিয়ে ব্যস্ত থাকা সম্ভব নয়। সিনেমায় খুব বেশি কাজ করতে হবে — তা আমি মনে করি না। সংখ্যায় কম হলেও ভালো কাজ করতে চাই। সময়-সুযোগ হলে আবার পুরোদমে কাজে ফিরব।’

প্রসঙ্গত, চাকরিতে নিয়মিত হলেও বেশ কয়েকটি সিনেমার কাজ শেষ করেছেন আইরিন। সেগুলো হলো, বুলবুল জিলানীর ‘রৌদ্র ছায়া’, আবু সাইয়ীদের ‘একজন কবির মৃত্যু’, জেসমিন আক্তার নদীর ‘চৈত্রের দুপুর’ এবং পশ্চিমবঙ্গের ‘শিবরাত্রী’। এই সিনেমাগুলো মুক্তির অপেক্ষায় রয়েছে।